তিন গরুতে কোটিপতি মুরাদ, ছেড়েছেন ব্যাংকের চাকরী

বরিশাল জেলার বাকেরগঞ্জ উপজেলার দাড়িয়াল ইউনিয়নের কোষাবড় গ্রামের একজন আত্মপ্রত্যয়ী প্রদীপ্ত যুবক মুরাদ মুন্সি। তিনি পরের অধীনে বড় কর্মকর্তা পদে চাকরি না করে উদ্যোক্তা হয়ে কর্মসংস্থান সৃষ্টির চিন্তা করে ২০২১ সালে ঢাকা নারায়ণগঞ্জের মার্কেন্টাইল ব্যাংকের চাকরি ছেড়ে উদ্যোক্তা হয়েছেন। এখন তিনি মুন্সি ন্যাচারাল ডেইরি ফার্মের সত্ত্বাধিকারী।

২০২১ সালে ঢাকা থেকে নিজ গ্রামের বাড়িতে এসে প্রথমে ২ লাখ ৫০ হাজার টাকা পুঁজি নিয়ে তিনটি গরু দিয়ে চালু করেন ডেইরি ফার্ম। এখন তার ডেইরি ফার্মে ৫ জনের কর্মসংস্থান সৃষ্টি করেছেন। মাত্র তিন বছরেই তার ফার্মে গরুর সংখ্যা এখন ৫০ টি। এখানে তিনি এ পর্যন্ত ৫০ লাখ টাকা বিনিয়োগ করেছেন।

বর্তমানে স্থায়ী আবাসনসহ তার ডেইরি ফার্মে সম্পদের পরিমান প্রায় দুই কোটি টাকা। প্রতিবছর কোরবানীর ঈদে তিনি অন্তত ১০টি গরু মোটাতাজা করেন। স্বাস্থ্যসম্মত পরিবেশে গরু পালন ও গরুর খাদ্য হিসেবে বাড়ির ভিটে আঙ্গিনাসহ খোলা মাঠেও চাষ করেছেন গরুর ঘাস। তার চাষের ঘাস খেয়েই প্রতিদিন তার ডাইরি ফার্মে ১০০ লিটার দুধ পাচ্ছেন। স্থানীয় চাহিদা পূরণ করেও এই দুধ যাচ্ছে দেশের বিভিন্ন প্রান্তে। মোটাতাজ করণেও পেয়েছেন সাফল্য। তার এ অভাবনীয় সাফল্য তাকে অভিষ্ট লক্ষ্যে পৌঁছে দিতে সহায়তা করছে। তার এই ডেইরি ফার্মে এখন এলাকায় পুষ্টি, আমিষ ও প্রোটিন সরবরাহে ভূমিকা রাখছে।