ডিএসইতে ৭ মাসে সবোর্চ্চ লেনদেন

প্রস্তাবিত ২০২২-২৩ অর্থবছরের বাজেট উপস্থাপনের পর দ্বিতীয় দিনের মতো ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে (ডিএসই) লেনদেন সাড়ে ১২০০ কোটি টাকা ছাড়িয়েছে। সোমবার (৫ জুন) ডিএসইতে ১ হাজার ২৫৬ কোটি টাকা শেয়ার কেনাবেচা হয়েছে। এদিন ডিএসইতে আগের সাত মাসের মধ্যে সর্বোচ্চ লেনদেন হয়েছে।

এর আগে, ২০২২ সালের ৮ নভেম্বর ডিএসইতে এক হাজার ৪৯৪ কোটি টাকার শেয়ার লেনদেন হয়। ওই দিনের পর সোমবার ডিএসইতে সর্বোচ্চ আর্থিক লেনদেন হয়েছে। এদিকে লেনদেন বৃদ্ধির এই ধারা অপর পুঁজিবাজার চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জেও (সিএসই) অব্যাহত ছিল।

এদিকে সোমবার (৫ জুন) ডিএসইতে ৩৬২টি কোম্পানির ২৩ কোটি ৮৩ লাখ ৭১ হাজার ৯০০টি শেয়ার ইউনিটের লেনদেন হয়েছে। লেনদেন হওয়া এ সব শেয়ার ও ইউনিটের মধ্যে দাম বেড়েছে বেড়েছে ৭১টির এবং কমেছে ১১২টির। শেয়ার দামে কোনো পরিবর্তন হয়নি ১৭৯টির। এদিন ডিএসইর প্রধান সূচক ডিএসইএক্স ৯ পয়েন্ট কমে ৬ হাজার ৩৫৬ পয়েন্টে উন্নীত হয়। অপর সূচকগুলোর মধ্যে ডিএসই-৩০ সূচক ১ পয়েন্ট কমে ২ হাজার ১৯৮ পয়েন্টে নেমে আসে। এ ছাড়া ডিএসইএস সূচক ১ পয়েন্ট কমে দাঁড়িয়েছে ১ হাজার ৩৮২ পয়েন্টে।

অন্যদিকে দেশের অপর পুঁজিবাজার চট্টগ্রাম স্টক এদিন এক্সচেঞ্জের (সিএসই) সার্বিক মূল্যসূচক সিএএসপিআই আগের দিনের চেয়ে ১১ পয়েন্ট কমে ১৮ হাজার ৭৭৬ পয়েন্টে নেমে আসে। এদিন সিএসইতে লেনদেন অংশ নেওয়া ২৩২টি প্রতিষ্ঠানের মধ্যে দাম বেড়েছে ৬০টির, কমেছে ৭৯টির এবং ৯৩টির দাম অপরিবর্তিত রয়েছে।

দিন শেষে সিএসইতে লেনদেন হয়েছে ২২ কোটি ৮৮ লাখ টাকা। আগের কার্যদিবসে লেনদেন হয় ২১ কোটি ৯৪ লাখ টাকা।

Views: 23