৫৫ টাকায় চিনি বিক্রি করছে টিসিবি

সবার কাছে ভর্তুকি মূল্যে ৫৫ টাকায় চিনি বিক্রি করছে সরকারের বিপণন সংস্থা ট্রেডিং করপোরেশন অব বাংলাদেশ (টিসিবি)। রাজধানীর বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ ও জনবহুল স্থানে টিসিবির পক্ষ থেকে এ সাশ্রয়ী মূল্যে চিনি বিক্রি করা হচ্ছে বলে টিসিবির পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে।

রবিবার টিসিবির মুখপাত্র হুমায়ুন কবির গণমাধ্যমকে বিষয়টি নিশ্চিত করেন।

এছাড়া টিসিবির পক্ষ থেকে বিশেষ এক বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়, রাজধানীর বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ ও জনবহুল স্থানে টিসিবির পক্ষ থেকে সাশ্রয়ী মূল্যে চিনি বিক্রি করার সিদ্ধান্ত হয়েছে। সোমবার দুপুর ১টা থেকে চিনি বিক্রি কার্যক্রম শুরু হয়। পরবর্তী নির্দেশনা না দেয়া পর্যন্ত এই কার্যক্রম চলবে। তবে একজন ভোক্তা ৫৫ টাকা দরে সর্বোচ্চ এক কেজি করে চিনি কিনতে পারবেন।

এর আগে গত কয়েকদিন ধরে হঠাৎ অস্থিতিশীল হয়ে উঠেছে চিনির বাজার। সংকটের কথা বলে সরকারের বেঁধে দেয়া মূল্যের চেয়ে ১০ থেকে ১৫ টাকা বেশি দামে চিনি বিক্রি করছেন ব্যবসায়ীরা। অনেক এলাকায় সংকট দেখা যায় প্যাকেটজাত চিনির। তবে কেন্দ্রীয় ব্যাংক বলছে, চাহিদার বিপরীতে দেশে পর্যাপ্ত চিনি আমদানি করা হয়েছে। সংকট হওয়ার কোনো কারণ নেই। রোববার বিকালে কেন্দ্রীয় ব্যাংকের পাঠানো এক বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, গত বছরের তুলনায় এ বছর চিনি সরবরাহে কোনো ঘাটতি নেই। শিগগিরই আরো ১ লাখ টন চিনি আমদানি করা হচ্ছে। একটু তদারকি করলে চিনির বাজার স্বাভাবিক হবে।

এদিকে ভোক্তা অধিদপ্তর থেকে চিনির দাম নিয়ে কারসাজির অভিযোগে অভিযান চালানো হচ্ছে। অভিযানে অনিয়ম পাওয়ায় করা হচ্ছে জরিমানাও। তবে টিসিবি থেকে ভর্তুকিমূল্যে বিক্রি করায় এবার থেকে চিনি দাম কমতে পারে বলে মনে করছেন সংশ্লিষ্টরা।