চিকুনগুনিয়া আক্রান্তদের বিনামূল্যে ফিজিওথেরাপি সেবা ও প্রশিক্ষণ দেবে ঢাকা সিটি কর্পোরেশন

ঢাকা দক্ষিণ সিটি কর্পোরেশন ডিএসসিসি’র জনসংযোগ কর্মকর্তা উত্তম কুমার রায় বলেছেন, চিকুনগুনিয়া আক্রান্তদের বিনামূল্যে ফিজিওথেরাপি সেবা ও প্রশিক্ষণ দেবে ঢাকা দক্ষিণ সিটি কর্পোরেশন। তিনি জানান, চিকুনগুনিয়া আক্রান্তরা ফোন করলে ফিজিওথেরাপি চিকিৎসক রোগীর বাড়িতে চলে যাবেন এবং সংশ্লিষ্ট রোগীকে বিনামূল্যে ফিজিওথেরাপী সেবা দেবেন। পাশাপাশি বাড়ির অন্য সদস্যদেরও এ ব্যাপারে প্রশিক্ষণ দেবেন।

সিটি কর্পোরেশনের প্রধান স্বাস্থ্য কর্মকর্তা শেখ মো. সালেহ উদ্দিন বলেন, এডিস মশা বাহিত চিকুনগুনিয়া রোগ প্রতিরোধে ডিএসসিসি ব্যাপক কার্যক্রম গ্রহণ করেছে। চিকুনগুনিয়া রোগ বিস্তার রোধে মশক নিধনের পাশাপাশি জনসচেতনতামুলক কার্যক্রমও জোরদার করেছে। এতে চিকুনগুনিয়া অনেকটা নিয়ন্ত্রণে চলে এসেছে।

তিনি বলেন, গত ১৬ জুলাই থেকে ডিএসসিসি চিকুনগুনিয়া আক্রান্ত রোগীদের বাড়িতে গিয়ে বিনামূল্যে চিকিৎসা সেবা ও ওষুধ প্রদান কার্যক্রম চালু করেছে। এখন পর্যন্ত প্রায় ২ সহস্রাধিক রোগী এই সেবা গ্রহণ করেছেন।

প্রধান স্বাস্থ্য কর্মকর্তা বলেন, মশক নিধন ও চিকিৎসা সেবা কার্যক্রমের পাশাপাশি রোগীদের পুনর্বাসনের লক্ষ্যে ডিএসসিসি ফিজিওথেরাপী ও প্রশিক্ষণ প্রদান কার্যক্রমও শুরু করছে।

ডিএসসিসি মেয়র মোহাম্মদ সাঈদ খোকন আগামীকাল ৩১ জুলাই সকাল ১১ টায় নগর ভবনে ব্যাংক ফ্লোর সেমিনার কক্ষে এই কার্যক্রমের উদ্বোধন করবেন বলে তিনি জানান।

তিনি বলেন, চিকুনগুনিয়া আক্রান্তরা যাতে দ্রুত সুস্থ্য হয়ে স্বাভাবিকভাবে তাদের দৈনন্দিন কাজকর্ম চালাতে পারেন এবং তারা যাতে চিকুনগুনিয়ার অসহ্য যন্ত্রণা থেকে কিছুটা পরিত্রান পেতে পারেন এ জন্যই ডিএসসিসি এই সেবাটি চালু করছে।

গত ১৬ জুলাই থেকে চিকুনগুনিয়া আক্রান্ত রোগীদের সিটি কর্পোরেশনের ৩টি হাসপাতালসহ ২৮টি স্বাস্থ্য কেন্দ্রে চিকিৎসা দেয়া হচ্ছে।

ডিএসসিসি সূত্র জানায়, নগরীর প্রতি ওয়ার্ডে ৪০জন করে মশক নিধন কর্মী অঞ্চল-১ এর অলি গলিসহ সমগ্র এলাকায় মশক নিধন কার্যক্রম চালাচ্ছে। পাশাপাশি প্রতিটি ওয়ার্ডে সব ধরনের নাগরিকদের নিয়ে সচেতনতামূলক সমাবেশ করছে সিটি কর্পোরেশন।