‘শেখ হাসিনা দেশকে মিসকিনের দেশের অপবাদ থেকে রক্ষা করেছেন’

কৃষিমন্ত্রী মতিয়া চৌধুরী বলেছেন, দেশে এখন ভিক্ষুক খুঁজে পাওয়া যায়না। যদিও পাওয়া যায় তাহলে টেম্পু ভাড়া দিতে হয়। তাদের পছন্দমত খাবার না দিলে তারা খেতে আসেনা। তিনি বলেন, একসময় মধ্যপ্রাচ্যের বিভিন্ন দেশে বাংলাদেশ থেকে লোক গেলে তাদের বলা হতো ‘আল মিসকিন আল বাংলাদেশ’ অর্থ্যাৎ বাংলাদেশ থেকে মিসকিন এসেছে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সেই মিসকিনের দেশের অপবাদ থেকে বাংলাদেশকে মুক্ত করেছেন। আমরা এখন সারা পৃথিবীর স্বীকৃতি পাচ্ছি।
সোমবার রাতে শেরপুরের নালিতাবাড়ী উপজেলার নন্নী ইউনিয়ন পরিষদ চত্ত্বরে ঈদুল আজহা উপলক্ষে দরিদ্র মানুষের মধ্যে বিশেষ ভিজিএফ চাল বিতরণকালে এক সমাবেশে মতিয়া চৌধুরী একথা বলেন।
কৃষিমন্ত্রী আরও বলেন, আইনের শাসন কাকে বলে পৃথিবী শেখ হাসিনার কাছ থেকে তা শিখছে। দেশ স্বাধীন হওয়ার ৪৩ বছর পর যুদ্ধাপরাধের বিচার হচ্ছে। বঙ্গবন্ধু হত্যার বিচার হয়েছে। যেকারণে এখন আন্তর্জাতিক আদালতে বাংলাদেশের জজদের বিচারক হিসেবে নিয়োগ দেওয়া হচ্ছে।
এসময় তার সাথে শেরপুরের জেলা প্রশাসক ডা. এ এম পারভেজ রহিম, পুলিশ সুপার মেহেদুল করিম, উপজেলা চেয়ারম্যান মোখলেছুর রহমান রিপন, শেরপুর পৌরসভার মেয়র হুমায়ুন কবীর রুমান সহ সংশ্লিষ্ট উপজেলা প্রশাসনের কর্মকর্তা ও স্থানীয় আওয়ামী লীগ নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।
এদিন মন্ত্রী বাঘবেড়, নন্নী, রাজনগর ও পোড়াগাঁও ইউনিয়নের প্রায় ৫ হাজার মানুষের প্রত্যেকের মাঝে ১০ কেজি করে চাল বিতরন করেন।