শ্রীলংকাকে উড়িয়ে শেষ চারে বাংলাদেশ

শ্রীলংকাকে রীতিমতো বিধ্বস্ত করে সাফ অনূর্ধ্ব-১৬ ফুটবল চ্যাম্পিয়নশিপের সেমিফাইনাল নিশ্চিত করেছে বাংলাদেশ। টানা দ্বিতীয় হারে শ্রীলংকার বিদায় ঘণ্টা বেজে গেছে। সিলেট জেলা স্টেডিয়ামে মঙ্গলবার ৪-০ গোলে লংকান কিশোরদের উড়িয়ে দিয়েছে বাংলাদেশের কিশোররা। আগামীর তারকাদের নৈপুণ্য দেখতে এদিন স্টেডিয়ামে উপস্থিত হয়েছিল হাজার দশেক দর্শক। শেষ পর্যন্ত খুশি মনে, জয়ের আনন্দ নিয়েই ঘরে ফিরতে পেরেছেন তারা। বাংলাদেশের পক্ষে সারোয়ার জামান নিপু দুটি এবং আবেদিন রাকিব ও মোহাম্মদ আতিকুজ্জামান একটি করে গোল করেন।
পুরো ম্যাচে একতরফাভাবে আক্রমণের পর আক্রমণ চালিয়েছে বাংলাদেশ। অফসাইডের কারণে দুটি গোল বাতিল না হলে ব্যবধান আরও বড় হতো। ম্যাচের শুরু থেকেই বাংলাদেশের কিশোররা ছোট ছোট পাস আর স্কিলের পসরা সাজিয়ে কাঁপাতে থাকে লংকানদের ডিফেন্স। প্রথম মিনিটেই নিপুর একটি গোল অফসাইডের কারণে বাতিল করে দেন রেফারি। তবে বেশিক্ষণ অপেক্ষা করতে হয়নি। চার মিনিটেই গোল পেয়ে যায় বাংলাদেশ। সম্মিলিত এক আক্রমণ থেকে লংকানদের বক্সে ঢুকে পড়ে ডিফেন্ডারদের বোকা বানিয়ে দুর্দান্ত এক শটে জাল কাঁপান নিপু। সঙ্গে সঙ্গে উল্লাসে ফেটে পড়ে দর্শকরা। ২৪ মিনিটে লোকাল হিরো সাদের কল্যাণে আবারও আক্রমণে ওঠে বাংলাদেশ। ডানপ্রান্ত থেকে দুই লংকান ডিফেন্ডারকে কাটিয়ে দারুণ এক ক্রস করেন বক্সে। তবে আবেদীন রাকিবের প্লেসিং শট চলে যায় পোস্টের বাইরে। খেলার ৩০ মিনিটে খলিল ভূঁইয়ার তীব্রগতির এক শট কর্নারের বিনিময়ে রক্ষা করেন লংকান গোলকিপার মোহাম্মদ ফাজলান।
প্রথমার্ধে এক গোল নিয়েই সন্তুষ্ট থাকতে হয়েছে বাংলাদেশকে। তবে দ্বিতীয়ার্ধের শুরু থেকেই গোলের ক্ষুধায় মরিয়া হয়ে আক্রমণ চালাতে থাকে স্বাগতিকরা। তার ফলও পেয়ে যায় তারা। ৬০ মিনিটে চমৎকার বোঝাপড়ায় বক্সে ঢুকে বাঁ-পায়ের জোরালো শটে গোল করেন আবেদীন রাকিব।
৬৩ মিনিটে সরওয়ার জামান নিপুর শট আবারও সাইডপোস্টে লেগে ফিরে আসে। ৭৬ মিনিটে মোহাম্মদ শাওনের কর্নার কিক থেকে
মোহাম্মদ আতিকুজ্জামান দর্শনীয় হেডে গোল
করেন। ৮৬ মিনিটে আবারও গোল উৎসব বাংলাদেশের। মোহাম্মদ শাওনের ডিফেন্স চেরা পাস থেকে একেবারে ঠাণ্ডা মাথায় গোল করার কাজটা সারেন নিপু।