যেমন মা, তেমন মেয়ে

সম্প্রতি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এবং প্রধানমন্ত্রীকণ্যা সায়মা ওয়াজেদ পুতুল বিশেষ সম্মাননা পেয়েছেন। সেই সম্মাননা হাতে মা-মেয়ের একসাথের ছবি ছড়িয়ে পড়েছে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে। ছবিটি ফেসবুকে শেয়ার করেছেন বঙ্গবন্ধুর দৌহিত্র ও শেখ রেহানার পুত্র রাদওয়ান মুজিব সিদ্দিক ববি।

গত ৮ সেপ্টেম্বর শিক্ষা ও নারীর ক্ষমতায়নে বিশেষ অবদানের জন্য প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে ‘শান্তি বৃক্ষ স্মারক’ সম্মাননা দেয় ইউনেস্কো। রাজধানীর একটি আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে ‘টেকসই উন্নয়নের ভিত্তি : নারী শিক্ষা ও সাক্ষরতা’ শীর্ষক আন্তর্জাতিক সম্মেলনে ইউনেস্কোর মহাপরিচালক ইরিনা বকোভা প্রধানমন্ত্রীর হাতে সম্মাননা তুলে দেন।

প্রধানমন্ত্রীর হাতে সম্মাননা তুলে দিচ্ছেন ইউনেস্কোর মহাপরিচালক ইরিনা বকোভা

পুরষ্কারপ্রাপ্তীর পর ইউনেস্কোর প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করে প্রধানমন্ত্রী শান্তিবৃক্ষ স্মারকটি সমগ্র বিশ্বের নারীদের উৎসর্গ করে বলেন, এই স্বীকৃতি আমি বাংলাদেশের মা-বোনদের, বিশেষ করে কন্যাশিশুদের উৎসর্গ করছি। এর দাবিদার তারাই।

অন্যদিকে অটিজম স্পেক্ট্রাম ডিসঅর্ডারস মোকাবিলায় অবদানের জন্য গত ১১ সেপ্টেম্বর সায়মা ওয়াজেদ পুতুলকে ‘অ্যাক্সিলেন্স ইন পাবলিক হেলথ’ সম্মাননা প্রদান করে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা। রাজধানীর সোনারগাঁও হোটেলে এক সংবর্ধনা অনুষ্ঠানের মাধ্যমে তাকে এ সম্মাননা দেওয়া হয়। এসময় তাঁর হাতে সম্মাননা তুলে দেন বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়ার আঞ্চলিক পরিচালক ড. পুনম ক্ষেত্রপাল সিং।

সম্মাননা অনুষ্ঠানে হাস্যোজ্জ্বল পুতুল ও ড. পুনম ক্ষেত্রপাল সিং

পুরষ্কারপ্রদান অনুষ্ঠানে ড. পুনম ক্ষেত্রপাল সিং বলেন, সায়মা হোসেন এ অঞ্চলে এবং বিশ্বব্যাপী অটিজম বিষয়ে বাংলাদেশের যে ভূমিকা তার মূল চালিকাশক্তি হিসেবে কাজ করছেন।

উল্লেখ্য, সায়মা ওয়াজেদ গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রণালয়ের নিউরো ডেভেলপমেন্টাল ডিজঅর্ডারস ও অটিজম-এর জাতীয় উপদেষ্টা কমিটির সভাপতি।