১৯০০ কোটি ডলার ছাড়িয়েছে রিজার্ভ

দেশের ইতিহাসে বিদেশি মুদ্রার মজুদ (রিজার্ভ) প্রথমবারের মতো এক হাজার ৯০০ কোটি (১৯ বিলিয়ন) ডলার ছাড়িয়েছে। গতকাল বুধবার বাংলাদেশ ব্যাংকের রিজার্ভের পরিমাণ দাঁড়িয়েছে এক হাজার ৯০৪ কোটি ৮০ লাখ ডলার। এই রিজার্ভ দিয়ে প্রায় ছয় মাসের আমদানি দায় মেটানো সম্ভব বলে জানিয়েছে কেন্দ্রীয় ব্যাংক।

বাংলাদেশ ব্যাংকের এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে, মাত্র তিন মাসের ব্যবধানে ১০০ কোটি ডলার রিজার্ভ বেড়েছে। গত সাড়ে চার বছরে রিজার্ভ বৃদ্ধির পরিমাণ ছিল ৯০০ কোটি ডলার। সার্কভুক্ত দেশগুলোর মধ্যে বর্তমানে রিজার্ভের পরিমাণে বাংলাদেশের অবস্থান দ্বিতীয়। প্রথমে রয়েছে ভারত। রিজার্ভ বাড়ার কারণ হিসেবে বাংলাদেশ ব্যাংক বলছে, কেন্দ্রীয় ব্যাংকের গৃহীত নানামুখী পদক্ষেপের ফলে রেমিট্যান্স প্রবাহের প্রবৃদ্ধি, রপ্তানিকারকদের দেওয়া প্রণোদনার ফলে রপ্তানি আয় বৃদ্ধিসহ নানা কারণে রিজার্ভ বেড়েছে। গতকাল প্রকাশকদের ঋণ প্রদান অনুষ্ঠানে রিজার্ভ বৃদ্ধির ঘোষণা দেন গভর্নর ড. আতিউর রহমান।